নতুন কম্পিউটারে যে সফটওয়্যারগুলো অবশ্যই ইউজ করতে হয়


নতুন কম্পিউটারে যে সফটওয়্যারগুলো অবশ্যই ইউজ করতে হয়

এই পোস্টটি একদম নতুনদের জন্য যারা এই প্রথম নতুন কম্পিউটার কিনেছে। কম্পিউটার কেনার সময়ই দোকান/শোরুম থেকে সেটাপ দিয়ে দেয়ার সময় দরকারি সফটওয়্যারগুলো দিয়ে দেয়া হয় তারপরও কিছু কিছু সফটওয়্যার ওরা দেয়ার প্রয়োজন মনে করে না। আমি নিচে একটা লিস্ট দিয়ে দিচ্ছি এগুলোর মধ্যে যেগুলো আপনার কম্পিউটার/ল্যাপটপ এ নেই সেগুলো ইন্সটল করে নিতে পারেন।
নতুন কম্পিউটারে যে সফটওয়্যারগুলো অবশ্যই ইউজ করতে হয়


নতুন কম্পিউটার এ ইউজ করার জন্য সফটওয়্যার লিস্ট

১। ওয়েব ব্রাউজার
আপনি পিসিতে অবশ্যই ইন্টারনেট চালাবেন। আর এই ইন্টারনেট চালানোর জন্য লাগবে ইন্টারনেট ব্রাউজার।

ফায়ারফক্স - সবচেয়ে বেশি কাস্টমাইজএবল এবং অধিক সংখ্যক এক্সটেনশন ও এডঅন যুক্ত ব্রাউজার। আপনি যদি টেকনোলোজি প্রিয় অথবা ইন্টারনেট এ কাজ করে থাকেন তাহলে ফায়ারফক্স হতে পারে আপনার প্রথম পছন্দ।
গুগল ক্রোম - সবচেয়ে দ্রুত এবং নিরাপদ ওয়েব ব্রাউজার। খুব সিম্পল ডিজাইনের মধ্যে ভাল কাজ করে। নরমাল ইউজারদের জন্য এটা বেস্ট চয়েস।

আপনারা এই ২টা ব্রাউজারই আপনাদের পিসিতে রাখবেন। এছাড়াও চাইলে অপেরা, কমোডো ড্রাগন ব্রাউজারও প্রয়োজন হলে ইউজ করতে পারেন।

২। ফাইল কম্প্রেশন এবং এক্সট্রাকশন সফটওয়্যার
উইনরার - একটি শক্তিশালী এবং লাইটওয়েট কমপ্রেশন এন্ড ডিকমপ্রেশন টুল। এই টুলটি অনেক ফরম্যাট যেমন রার, জিপ এগুলো আনপ্যাক করতে পারে। তবে একটা অসুবিধা হল এটা দিয়ে আনপ্যাক করলে বারবার পপ আপ ইউন্ডো ক্লোজ করতে হয়।

৩। ড্রাইভার আপডেট সফটওয়্যার
একটি ড্রাইভার স্ক্যানার/চেকার আপনাকে অটোম্যাটিক্যালি মিসিং ড্রাইভারগুলো ইন্সটল করতে এবং আপডেট করতে সাহায্য করবে।
ড্রাইভারম্যাক্স - এটি একটি শক্তিশালী ড্রাইভার চেকার। এটি নিজে নিজেই মিসিং ড্রাইভারগুলো খুঁজে বের করতে পারে এবং ডাউনলোড করে ইন্সটল করতে পারে। এটার মধ্যে ব্যাকআপ এবং রিস্টোর অপশন আছে তাই আপনি যদি কোন ভুল করে ফেলেন তাহলে সেটিও সমাধান করা যাবে। এটী সিনেট ইউজারদের দেয়া টপ রেটেড ড্রাইভার চেকার।

৪। এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার
আপনার পিসিকে ভাইরাস এর হাত থেকে রক্ষা করার জন্য পিসিতে অবশ্যই একটি এন্টিভাইরাস থাকা দরকার। আমি সাজেস্ট করব ফুল ফিচার আছে এ রকম একটি এন্টিভাইরাস ইউজ করার জন্য। কিন্তু তা যদি আপনি না পারেন তাহলে ফ্রী এন্টিভাইরাস ইউজ করতে পারেন। নাই মামার চেয়ে কানা মাম ভাল বলে একটা কথা আছে না?

৫। ফায়ারওয়াল
এন্টিভাইরাস থাকলে ফায়ারওয়াল ইউজ করতে হবে কেন? ২টার কাজ সম্পূর্ণ আলাদা। ফায়ারওয়াল আপনাকে আগেই ওয়ার্নিং দিবে, রিস্কি কিছু হলে ব্লক করে দিবে আর এন্টিভাইরাস এর কাজ হচ্ছে এফেক্টেড হওয়ার পর তা রিমুভ করা। তাই আপনাকে ২টাই ইউজ করতে হবে। উইন্ডোজ এ ডিফল্টভাবে একটা ফায়ারওয়াল দেয়া থাকে কিন্তু আপনি চাইলে থার্ডপার্টি ফায়ারঅওয়াল (কমোডো ফ্রী ফায়ারওয়াল) ইউজ করে দেখতে পারেন।

৬। সফটওয়্যার আনইন্সটলার
মাইক্রোসফট ইউন্ডোজ এর ডিফল্ট সফটওয়্যার আনইন্সটলার রয়েছে। কিন্তু এটি সম্পূর্ণ ভাবে একটি সফটওয়্যার এর সব ফাইল রিমুভ করতে পারেনা। এর কারণে কিছুদিন পর আপনার পিসি স্লো হয়ে পড়ে। সে কারণে একটি বেটার থার্ডপার্টি আনইন্সটলার ইউজ করা ভাল

রেভো আনইন্সটলার - এটি বেস্ট ফ্রী আনইন্সটলার এর মধ্যে একটি। এটি প্রথমে সিলেক্টেড সফটওয়্যারটির বিল্টইন আনইন্সটলার থেকে আনইন্সটল করে তারপর ঐ সফটওয়্যার এর রেখে যাওয়া ফাইলগুলো খুঁজে বের করে এবং রিমুভ করে।

৭। মিডিয়া প্লেয়ার
আপনি যদি ভিডিও দেখতে এবং মিউজিক শুনতে ভালবাসেন তাহলে অবশ্যই আপনার একটি ভাল মিডিয়া প্লেয়ার দরকার হবে যেটাতে আপনি স্মুথলি ভিডিও দেখতে অথবা গান শুনতে পারবেন।

পটপ্লেয়ার - এটির অথর হচ্ছে কেএম প্লেয়ার এর অথর। এই প্লেয়ারটিকে কেএম প্লেয়ার এর আপডেটেড ভার্সন বলে বিবেচনা করা হয়। এটি খুবই পাওয়ারফুল, কাস্টমাইজএবল এবং স্টেবল একটি মিডিয়া প্লেয়ার।
ভিএলসি মিডিয়া প্লেয়ার - এটি টপ ফ্রী মিডিয়া প্লেয়ারগুলোর মধ্যে একটি। এটি বেশ দীর্ঘ সময় ধরে ইউজারদের সেবা দিয়ে আসছে। এটি পোর্টেবল এবং ইউজার ফ্রেন্ডলি মিডিয়া প্লেয়ার।

৮। অফিস স্যুট
আপনি পিসি কেনার সময় আপনাকে মাইক্রোসফট অফিস স্যুটটা ইন্সটল করে দেয়া হবে। মাইক্রোসফট অফিস স্যুটটাই বেস্ট। এছাড়াও আপনি চাইলে অনলাইনেবেইসড গুগল ড্রাইভ এর গুগল ডকস এবং গুগল শীটস ইউজ করতে পারেন।

৯। পিডিএফ রিডার
আপনার পিসিতে পিডিএফ ফাইল অথবা ইবুক পড়ার জন্য একটি পিডিএফ রিডার লাগবে। এডবি পিডিএফ রিডারই স্ট্যান্ডার্ড পিডিএফ রিডার। তবে আপনি চাইলে এটা ছাড়া ফক্সিট রিডারও ইউজ করতে পারেন।

১০। ভিডিও কলিং সফটওয়্যার
আপনার পিসি থেকে অনলাইনে কারো সাথে কথা বলতে চাইলে অথবা ভিডিও চ্যাট করতে চাইলে আপনার ভিডিও কলিং সফটওয়্যার লাগবে।

স্কাইপি - পিসির জন্য সবচেয়ে জনপ্রিয় ভিডিও কলিং এপস। এটি যেমন পপুলার তেমন ইউজার ফ্রেন্ডলি। আপনি এটি দিয়ে অডিও কল, ভিডিও কল এমনকি পিসি থেকে মোবাইল ফোন নাম্বারেও কল দিতে পারবেন।
টীমভিউয়ার - এটাকে ভিডিও কলিং সফটওয়্যার ঠিক বলা যায় না, বরং রিমোট কন্ট্রোলার বলা যায়। এর মাধ্যমে আপনি আপনার স্ক্রীন আরেক জনে পিসি ইউজার এর সাথে শেয়ার করতে পারবেন অথবা আপনি রিমোটলি অন্য কম্পিউটার এ এক্সেস করে কাজ করতে পারবেন।

নতুন কম্পিউটার এর জন্য এই সফটওয়্যারগুলোই যথেষ্ট।


ল্যাপটপ এ যে সফটওয়্যারগুলো ইউজ করতেই হবে

এই বিষয়ের এই পোস্টটি আশা করি আপনাদের ভাল লাগবে।

আরও দেখুন -

Post a Comment

0 Comments