গুগুল এডসেন্স থেকে আয় করার উপায় - নতুনদের জন্য সহজ গাইডলাইন


গুগল এডসেন্স থেকে আয় করার উপায়

Google Adsense থেকে আয় করার আগে আমাদের জানতে হবে গুগল এডসেন্স কি? এটি হচ্ছে সার্চ ইঞ্জিন জায়ান্ট গুগল এর একটি প্রোডাক্ট। এর মাধ্যমে গুগল ব্লগ/ওয়েবসাইট/ইউটিউব চ্যানেল/এন্ড্রয়েড এপস মালিকদের ব্লগে/ওয়েবসাইটে/ভিডিওতে/এপসে বিজ্ঞাপন প্রদর্শন করে থাকে। এবং এর বিনিময়ে ওয়েবসাইট/চ্যানেল মালিককে পেমেন্ট দিয়ে থাকে। আপনারা বিভিন্ন ওয়েবসাইট ভিজিট করলে অথবা ইউটিউব এ ভিডিও দেখলে দেখবেন বিভিন্ন জায়গায় বিজ্ঞাপন প্রদর্শিত হয় যার পাশে লেখা থাকে  Ads by Google। এগুলোই হচ্ছে এডসেন্স বিজ্ঞাপন। আজকে আমরা আলোচনা করব এডসেন্স থেকে আয় করার উপায়গুলো নিয়ে।
গুগল এডসেন্স থেকে আয় করার উপায়

গুগল এডসেন্স থেকে আয় করুন

আমাদের গুগল এডসেন্স টিউটোরিয়ালটি দেখলে আশা করি আপনি এডসেন্স থেকে আয় করার পদ্ধতিগুলো সম্পর্কে ক্লিয়ার হতে পারবেন। এডসেন্স থেকে আয় করার জন্য আপনাকে সর্বপ্রথম যা করতে হবে তা হল একটি একাউন্ট তৈরী করতে হবে। একাউন্ট তৈরী করার পর আপনি যে মাধ্যমে আয় করতে চান সেটি দিয়ে এপ্লাই করতে হবে। যেমন আপনি কি ওয়েবসাইট দিয়ে আয় করতে চাচ্ছেন নাকি ইউটিউব চ্যানেল দিয়ে আয় করতে চাচ্ছেন নাকি এন্ড্রয়েড এপস দিয়ে আয় করতে চাচ্ছেন?


কি কি উপায়ে এডসেন্স থেকে আয় করা যায়?

ব্লগ/ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে
এই মাধ্যম থেকে ইনকাম করার একটি উপায় হচ্ছে ব্লগ/ওয়েবসাইট। আপনার একটি মানসম্মত ওয়েবসাইট থাকতে হবে। ওয়েবসাইটে গুগল পলিসি অনুসরণ করে কনটেন্ট/পোস্ট থাকতে হবে। ওয়েবসাইটটি সুন্দরভাবে সাজানো গুছানো থাকতে হবে। নিচের ক্রাইটেরিয়াগুলো ফুলফিল থাকলে আপনি সহজেই এডসেন্স একাউন্ট পাবেন।

  • অবশ্যই ভাল কোয়ালিটির ২৫-৩০ টি পোস্ট থাকতে হবে, পোস্টগুলো ক্যাটাগরি অনুযায়ী সাজানো থাকতে হবে।
  • সাইটে অন্য কোন কোম্পানীর এড থাকা যাবে না, একাউন্ট পাওয়ার পর অন্য কোম্পানীর এড ইউজ করতে পারবেন।
  • সম্পুর্ণ নিজের ইউনিক আর্টিকেল থাকতে হবে কপি পেস্ট হলে চলবে না।
  • একটি টপ লেভেল ডোমেইন (.com, .net, .org) থাকতে হবে, ফ্রী সাইট হলে হবে না।
  • এডাল্ট কনটেন্ট, কপিরাইট কনটেন্ট, হ্যাকিং কনটেন্ট, ক্রাইম, ইলিগ্যাল ড্রাগ রিলেটেড কনটেন্ট থাকা যাবে না।
  • ডোমেইন এর বয়স কমপক্ষে ৩-৪ মাস হলে ভাল, অনেকে এর কম দিয়েও পাচ্ছে।


এগুলো মেনে এপ্লাই করলে আপনার সাইটটি এপ্রুভ করবে তারপর আপনি বিজ্ঞাপন প্রদর্শন করে ইনকাম করতে পারবেন। কিন্তু কোন কারণে যদি আপনার সাইট এপ্রুভ না করে তাহলে আপনি এডসেন্স এর বিকল্প এড নেটওয়ার্ক ব্যবহার করতে পারেন।
এ নিয়ে বিস্তারিত সিরিজ পোস্ট লিখব। পোস্টগুলো পেতে চাইলে আমাদের সাইটটি বুকমার্ক করে রাখতে পারেন।

ইউটিউব ভিডিও এর মাধ্যমে
এই মাধ্যম থেকে টাকা আয় করার আরেকটি উপায় হল ইউটিউব ভিডিও। আপনার যদি ব্লগিং ভাল না লাগে, ওয়েবসাইট ম্যানেজমেন্ট না পারেন তাহলে আপনি ইউটিউব ভিডিও নিয়ে কাজ করতে পারেন। এজন্য আপনার একটি ইউটিউব চ্যানেল থাকা লাগবে। সেখানে ভাল ভাল কনটেন্ট থাকা লাগবে। কারণ ভাল কনটেন্ট না থাকলে ভাল ভিউ পাবেন না, আর ভিউ না পেলে আপনার ইনকাম ও হবেনা। ইউটিউব ভিডিও থেকে ইনকাম করতে হলে নিচের বিষয়গুলো জেনে রাখা জরুরী।

  • চ্যানেলটি সাজানো গোছানো থাকতে হবে, যেন প্রফেশনাল লুক দেখা যায়।
  • ভাল ভাল ভিডিও থাকতে হবে যেগুলো দর্শকরা দেখবে এবং পছন্দ করবে।
  • ভিডিওগুলো ইউনিক অর্থাৎ নিজের তৈরী করা হতে হবে কপি করা যাবে না। কপি করলে ইউটিউব আপনার চ্যানেল ব্যান করে দিবে।
  • এডসেন্স পাওয়ার জন্য আপনার চ্যানেল এর মোট ভিউ ১০,০০০ হতে হবে।


এই পোস্টটি পড়ে দেখতে পারেন  ইউটিউব থেকে আয় করার উপায়গুলো

এন্ড্রয়েড এপস এর মাধ্যমে
আপনি যদি এন্ড্রয়েড এপস এর মাধ্যমে আয় করতে চান তাহলে প্রথমে আপনার একটি ওয়েবসাইট দিয়ে এডসেন্স একাউন্ট এপ্রুভ করিয়ে নিতে হবে। এপ্রুভ হওয়ার পর আপনি আপনার এপস এ গুগল এর বিজ্ঞাপন দেখাতে পারবেন। এপ থেকে ইনকাম করার জন্য আপনার নিচের বিষয়গুলো খেয়াল রাখতে হবে।

  • আপনাকে ভাল একটি এপ বানাতে হবে যেন ইউজাররা এটা বেশি বেশি ইউজ করে।
  • ইলিগ্যাল কোন কাজের জন্য বানানো এপ দিলে আপনি ব্যান খাবেন।
  • এপ বানানোর পর প্লেস্টোর এ আপলোড দিতে হবে।
  • আপলোড দেয়ার পর মার্কেটিং করতে হবে যেন মানুষ আপনার এপ ইউজ করে কারণ যত বেশি ইউজার হবে আপনার ইনকাম তত ভাল হবে।

  

গুগল এডসেন্স একাউন্ট তৈরী

এডসেন্স একাউন্ট তৈরী করার জন্য আপনার একটি জিমেইল একাউন্ট থাকলেই চলবে। তারপর এখানে গিয়ে সাইন আপ নাউ এ ক্লিক করে আপনার ওয়েবসাইট লিংক অথবা ইউটিউব চ্যানেল লিংক দিবেন, ইমেইল দিয়ে ইয়েস সিলেক্ট করে সেভ এন্ড কন্টিনিউ তে ক্লিক করে পরের স্টেপ এ যাবেন। আপনার নাম এবং ব্যাংক একাউন্ট নাম সেম হতে হবে সেই নাম দিয়ে এবং আপনার বাসার এড্রেস দিয়ে সাইন আপ কমপ্লিট করবেন। এড্রেসটা খুব কেয়ারফুলি দিবেন কারণ এই এড্রেস এ আপনাকে পিন পাঠাবে ভেরিফাই করার জন্য। আশা করি বুঝতে পেরেছেন। তো এভাবেই এডসেন্স একাউন্ট খুলতে হয়।

এরপর আপনার ওয়েবসাইট অথবা চ্যানেল রিভিউ করবে সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে এপ্রুভ করে ফেলবে। আর এপ্রুভ করলেই আপনি আপনার ব্লগ/চ্যানেল এ বিজ্ঞাপন দেখাতে পারবেন।

এডসেন্স থেকে টাকা তোলার পদ্ধতি

গুগল এডসেন্স থেকে টাকা তোলা যায় ব্যাংক এর মাধ্যমে। আগে টাকা পাওয়ার জন্য গুগল চেক পাঠাত সেই চেক ব্যাংক থেকে ভাঙ্গিয়ে নিতে হত কিন্তু এখন সরাসরি ব্যাংক একাউন্ট এ টাকা পাঠিয়ে দেয়। এডসেন্স একাউন্ট এ ব্যাংক এড করা থাকলে এবং আপনার এড্রেস পিন ভেরিফাই করা থাকলে ১০০ ডলার হলেই গুগল মাসের শেষ এর দিকে আপনার একাউন্ট এ টাকা পাঠিয়ে দিবে।

আশা করি পোস্টটি আপনাদের ভাল লাগবে। আপনার কোন কিছু জানার থাকলে কমেন্ট করুন। আর চাইলে আমাদের পোস্টটি আপনার সোশ্যাল প্রোফাইলে শেয়ার করতে পারেন।

গুগুল এডসেন্স থেকে আয় করার উপায় - নতুনদের জন্য সহজ গাইডলাইন গুগুল এডসেন্স থেকে আয় করার উপায় - নতুনদের জন্য সহজ গাইডলাইন Reviewed by Admin on 2:41 PM Rating: 5

2 comments:

  1. খুব ভালো একটি পোস্ট করেছেন আশাকরি আপনার কাছেএডসেন্স থেকে আয় নিয়ে আগামিতে আরও ভালো পোস্ট পাবো। ধন্যবাদ

    ReplyDelete
    Replies
    1. দেরীতে রিপ্লাই দেয়ার জন্য দুঃক্ষিত। আপনার ব্লগটা ভাল লেগেছে।

      Delete

Powered by Blogger.